Dinajpur And Job

It is a Fully Bangla site |About Job information | Blogger Tutorial tips |SEO Tips |Make money Tips | Freelancer and many more...

বিজ্ঞাপন

ব্লগার ব্লগে যুক্ত করে নিন অটো এনিমেশন Latest Posts ওয়েডগেট

2 comments :
বন্ধুরা, আজকে আমি আপনাদের জন্য সুন্দর একটি Latest Posts ওয়েডগেট নিয়ে হাজির হলাম । এই পোস্টে স্টাইল এটাতে কোন ইমেজ শো করবে না এটা লিস্ট আকারে দেখাবে সঙ্গে একটা সুন্দর ইফেক্ট আছে আর সেটা হল এটা অটো এনিমেশন বলতে পারেন । যাই হোক বিস্তারিত নীচে থেকে দেখুন

যে ভাবে  Latest Posts ওয়েডগেট যুক্ত করতে হবে ?

১// আপনার ব্লগ লগ ইন করুন তারপর ড্যাশবোর্ড থেকে Layout এ ক্লিক করুন ।

২// এবার Add a gadget এ ক্লিক করুন তাহলে একটি পপ আপ বক্স আসবে সেখান থেকে HTML/Javascript ক্লিক করুন । নীচের চিত্রে দেখুন ..






৩// Title ঘর ফাকা রেখে Content ঘরে নীচের কোড গুল কপি করে পেস্ট করুন ।
<style>
.gfg-root {
width: 100%;
height : auto;
position : relative;
overflow : hidden;
margin: 0 auto;
text-align : center;
font-size: 12px;
border: 1px solid #DBDBDB;
}
.gfg-title {
font-size: 16px;
font-weight : bold;
color : #6B6B6B;
background:#F3F3F3;
background-repeat: repeat;
line-height : 1.4em;
overflow : hidden;
white-space : nowrap;
padding: 5px;
text-shadow: 0px 2px #fff;
}
.gfg-entry {
background-color: #FFFFFF;
width : 100%;
height : 9.2em;
position : relative;
overflow : hidden;
text-align : left;
margin-top : 3px;
}
.gf-title a {
text-transform: capitalize;
color: #0000ff;
font-size: 14px;
}
.gfg-subtitle {
display: none;
}
.gfg-list {
position : relative;
overflow : hidden;
text-align : left;
}
.gfg-listentry {
line-height : 1.5em;
overflow : hidden;
white-space : nowrap;
text-overflow : ellipsis;
padding-left : 15px;
padding-right : 5px;
}
.gfg-listentry-odd {
background-color : #F3F3F3;
border-bottom : 1px dotted #CCCCCC;
padding: 5px;
}
.gfg-listentry-even {
background-color : #F3F3F3;
border-bottom : 1px dotted #CCCCCC;
padding: 5px;
}
.gfg-listentry-odd a{
color: #595959;
padding: 0 0px 0 10px;
}
.gfg-listentry-even a{
color: #242424;
padding: 0 0px 0 10px;
}
.gfg-listentry-highlight {
background: #FFFFFF;
}
.gfg-listentry-highlight:before {
position: absolute;
left: 0;
content: '\25BA ';
font-size: 14px;
color: #DBDBDB;
}
.gfg-listentry-highlight a {
color: #242424;
}
.gfg-root .gfg-entry .gf-result {
position : relative;
background-color: #ffffff;
width : auto;
height : 100%;
padding-left : 20px;
padding-right : 5px;
}
.gfg-root .gfg-entry .gf-result .gf-title {
font-size: 14px;
line-height : 1.2em;
overflow : hidden;
white-space : nowrap;
text-overflow : ellipsis;
margin-bottom : 2px;
margin-top: 5px;
}
.gfg-root .gfg-entry .gf-result .gf-snippet {
height : 3.8em;
color: #000000;
margin-top : 3px;
}
.clearFloat {
clear : both;}</style>
<script src="http://www.google.com/jsapi" type="text/javascript"></script><script src="http://www.google.com/uds/solutions/dynamicfeed/gfdynamicfeedcontrol.js" type="text/javascript"></script>
<script type="text/javascript">
function showGadget() {var feeds = [{title:'List',url:'http://amar-pc.blogspot.com/feeds/posts/default?redirect=false&start-index=1&max-results=10'},];
new GFdynamicFeedControl(feeds, 'feedGadget',{title: 'Latest Posts', numResults : 10, displayTime : 5000, hoverTime : 500});} google.load("feeds", "1");
google.setOnLoadCallback(showGadget);
</script>
<div id="feedGadget">Loading...</div>


নোটঃ উপরে হাই লাইট কালার গায়জায় নিজের ব্লগার লিঙ্ক দিন ।

৪// এবার Save করুন আপনার কাজ শেষ এবার ব্লগে গিয়ে দেখুন আশা করি করতে পেরেছেন ।

কোন আসুবিধা হলে কমেন্ট জানাতে ভুলবেন না আমি হেল্প করার চেষ্টা করবো । আমি ব্লগার নিয়ে আরও ভাল ভাল পোস্ট নিয়ে আসব । তাহলে আজকে এই পর্যন্ত ভাল থাকুন সুস্থ  থাকুন ধন্যবাদ ।
 

এক তেলেই রান্না হবে ৮০ বার - কথাটি হাস্যকর হলেও সত্যি

1 comment :
রান্না

পাম তেল ও প্রাকৃতিক ভেষজ উপাদান মিশিয়ে গবেষকরা এক নয়া ভোজ্য তেল উৎপাদনে সক্ষম হলেন। শুনলে খুশি হবেন, কারণ এই তেল একবার নয়, রান্নায় ব্যবহার করা যাবে ৮০ বার পর্যন্ত। পাশাপাশি এই তেল রান্নায় ব্যবহার করলে ব্যবহারকারীর ক্যান্সারের ঝুঁকিও কমবে বলে দাবি করেছেন গবেষকরা।
নয়া এই তেলের পোশাকি নাম AFDHAL cooking oil। যা তৈরি হয়েছে ভেষজ উপাদান থেকে। এই তেলে রান্না করলে খাবারের ভিতর তেল কম ঢুকবে। পাশাপাশি একবার কড়াইতে ঢেলে ফেলার পর ৮০ বার একই তেলে রান্না করলেও শরীরের এতটুকু ক্ষতি হবে না বলে দাবি করেছেন গবেষকরা।
পাটা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক সুহাইলা মহম্মদ বলছেন, "AFDHAL cooking oil তৈরি হয়েছে পাম তেল ও রুটাসি-র মত ভেষজ উপাদান মিশিয়ে। এই তেলে রাঁধা খাবার তেল শোষণ করবে না বললেই চলে। পাশাপাশি এই তেলে রয়েছে উচ্চ পরিমাণ অ্যান্টি অক্সিডেন্ট, অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল উপাদান যা মানবদেহের জন্য অত্যন্ত উপকারী।" 
তথ্যসূত্র - bengali.kolkata24x7.com

বিভিন্ন রকম এ রকম হাজার খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন।

ঘরে পোকামাকড়ের উপদ্রব থেকে বাঁচার সহজ উপায়

3 comments :
ঘরে পোকামাকড়ের উপদ্রব একটি সাধারন ঘটনা হলেও আমাদের কাছে এটি একটি অস্বস্তিকর ও ঝামেলার বিষয়। মশা, মাছি থেকে শুরু করে তেলাপোকা কিংবা ইঁদুর সব ধরনের পোকামাকড়ের উপদ্রবই দেখা যায়। এসব পোকামাকড় শুধু ঘর নোংরাই করে না তার সাথে ছড়ায় রোগ জীবানু। তাছাড়াও জামাকাপড়, বই খাতা ও খাবার নষ্ট করায় এর জুড়ি নেই। অনেক সময় ঘরে পোকামাকড়ের উপদ্রব আমাদের অতিষ্ট করে তোলে যার ফলে আমরা পোকামাকড় তাড়াতে কীটনাশক ব্যাবহার করে থাকি। কিন্তু ওই কীটনাশক পোকামাকড়ের মতই বিষাক্ত যা আমাদের শরীরের জন্য অত্যান্ত ক্ষতিকর। তবে কিছু সচেতনতা এবং কিছু প্রাকৃতিক উপাদানের মাধ্যমে আমরা এসব পোকামাকড়ের উপদ্রব থেকে বাঁচতে পারি। তাহলে চলুন জেনে নেই পোকামাকড়ের উপদ্রব থেকে বাঁচার উপায়গুলো সম্বন্ধে।
ঘরে পোকামাকড়ের উপদ্রব থেকে বাঁচার সহজ উপায়

 উপায় গুলি এক পলকে দেখে নিন।

  •  নিমপাতা একটি প্রাকৃতিক কীটনাশক । যদিও এটি পোকামাকড়দের জম তবে মানুষের উপকার ছাড়া এতে অপকার নেই। আলমারিতে বা কাপড় রাখার স্থানে তোশকের নিচে শুকনো নিমপাতা বা কালোজিরা কাপড়ে বেঁধে রাখুন। নিমপাতা পানিতে দিয়ে ঘর মুছুন। পোকা-মাকড়ের উপদ্রব কমবে।
  •  দারচিনি ও লবঙ্গ হচ্ছে মশলা জাতীয় উপাদান। তবে এটি তেলাপোকা কিংবা পিঁপড়া তাড়াতে কাজে আসে। দারচিনি এবং লবঙ্গ আপনার ঘরে যেমন সুন্দর গন্ধ ছড়াবে তেমনি দূর করবে পিঁপড়ার যন্ত্রণা। ঘরের বিভিন্ন স্থানে কয়েক টুকরো দারচিনি ও লবঙ্গ রেখে দিন। চিনির পাত্রের প্রতি পিঁপড়াদের আগ্রহ অনেক বেশি, এটা সবাই জানি। এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে কয়েকটি লবঙ্গ রাখুন।
  •  ঘরের দেয়ালে উইপোকার উপদ্রব থেকে রেহাই পেতে দেয়ালের যে স্থান থেকে উইপোকা বের হয়, সেখানে কর্পূরের গুঁড়ার সঙ্গে লিকুইড প্যারাফিন মিশিয়ে দ্রবণ তৈরি করে দেওয়া যেতে পারে।
  • শুকনো নিমপাতার গুঁড়ো রান্নাঘরের যেকোনো স্থানে ছড়িয়ে রাখলে পোকার উপদ্রব কম হয়ে থাকে।
  •  আমাদের বাসাবাড়িতে সাধারণত কালো ইঁদুরের উপদ্রব বেশি হয়ে থাকে। যেকোনো ধরনের ইঁদুরের হাত থেকে রেহাই পেতে ইঁদুরের গর্তের মুখে মরিচের ধোঁয়া দেওয়া যেতে পারে। এ ছাড়া ইঁদুরের গর্তে পানি ঢাললে ইঁদুরের উপদ্রব কমে।
  • ঘরের মেঝে পরিস্কার করার সময় পানিতে দুই টেবিল চামচ ভিনেগার মিশিয়ে নিন। এতে তেলাপোকা, পিঁপড়া এবং আরশোলা থেকে রেহাই পাবেন।
  •  ঘর থেকে মশা-মাছি দূর করতে স্যাভলন দিয়ে ঘর পরিষ্কার করুন। এটি আপনার ঘর জীবাণু মুক্ত রাখবে।
  • মশা তাড়াবার একটা সহজ উপায় হল কর্পূর এর ব্যবহার, কয়েক টুকরো কর্পূর আধকাপ পানিতে ভিজিয়ে খাটের নীচে রেখে দিন। এতে নিশ্চিত ভাবে বাসায় মশার উপদ্রপ কমে যাবে।
  • পিঁপড়ার গর্তের মুখে পিপারমিন্ট অয়েলে ভেজানো তুলা রেখে দিন। পিঁপড়া কমে যাবে।
  •  ময়লা ফেলার জায়গায় বোরিক পাউডার ছিটিয়ে দিন। এতে মাছির উপদ্রব কমে যাবে।
  •  চিনির সাথে সমপরিমাণ বোরিক পাউডার মিশিয়ে ঘরের কোনায়, দেয়ালে ছড়িয়ে দিন। এতে তেলাপোকার অত্যাচার কমবে।
  • ঘরে ইঁদুরের উপদ্রব থেকে বাঁচতে চাইলে তুলোর বল পিপারমিন্ট অয়েলে চুবিয়ে ঘরের বিভিন্ন স্থানে রেখে দিন। পিপারমিন্ট অয়েল বাজারে না পেলে ঘরে পুদিনা পাতার রস অলিভ অয়েলে মিশিয়ে মুখ বন্ধ করে ৩ দিন রেখে দিন।
  •  ঘরে উইপোকার উৎপাত শুরু হলে চিনি এবং দারুচিনি গুড়ো মিশিয়ে আক্রান্ত স্থানে রেখে দিন। এতে উইপোকার উপদ্রব কমে যাবে।
  •  রান্না ঘরের বেসিনের পানির লাইন এবং ওয়াশ রুমের লাইনগুলোতে ফুটন্ত পানি ঢালুন। এর ফলে সেখানে মশা মাছি জন্মাতে পারবে না।
  •  ঘরের, লেপ, তোশক, বালিস, কাপড় ইত্যাদি মাঝেমধ্যে রোদে দিতে হবে। এতে করে পোকামাকড় কম হবে।
  • খাবারকে পোকার হাত থেকে রক্ষার জন্য খাবার টেবিল ও রান্নাঘরে চুলার ওপর কোনো লাইট দেয়া যাবে না।
  • প্রতিটি ঘরের কোনা অবশ্যই পরিষ্কার রাখতে হবে। ঘরে আলো-বাতাস প্রবেশ করার ব্যবস্থা করতে।
  •  প্রতিদিন ঘরের মেঝে পরিষ্কার করুন। ঘর মুছতে ফিনাইল বা অ্যান্টিসেপটিক লিকুইড ব্যবহার করুন। এতে পোকামাকড়ের আনাগোনা অনেকটাই কমে যাবে।
  • ঘরের কোথাও পানি জমতে দেবেন না। ফুলদানীর পানিও একদিন পর পর পাল্টে ফেলুন। পুরোনো ফুলের পাতা, পাপড়ি বা ডাঁটি যেন পানিতে জমে পচে না যায় সেদিকে খেয়াল রাখুন।
  •  রান্নাঘরের ডাস্টবিনের জায়গা, স্টোররুম, আলমারির পেছনের অন্ধকার জায়গা, খাটের নিচে, ঘরের কোনা ইত্যাদি জায়গাগুলো পরিষ্কার রাখুন। কারণ এসব জায়গায় মশা লুকিয়ে থাকে।
  •  সন্ধ্যা ছয়টা থেকে রাত আটটা পর্যন্ত ঘরের দরজা ও জানালা বন্ধ রাখুন। এ সময়টাতেই ঘরে মশা ঢোকে বেশি।
  •  ঘরে বিভিন্ন ফলমূল থাকলে মাছির উপদ্রব বেড়ে যায়। মাছির উৎপাত এড়াতে চাইলে ঘরের কোণে একটি হালকা ভেজা দড়ি ঝুলিয়ে রাখুন। মাছি সব দড়িতে বসবে। ফলমূল খাবারদাবার থেকে দূর হবে মাছি।
সূত্র: উইকিপিডিয়া

কি ভাবে পেনড্রাইভ ও মেমরি কার্ড থেকে রাইট প্রোটেকশন দূর করবেন

2 comments :
আজ শেয়ার করবো কিভাবে পেনড্রাইভ ও মেমরি কার্ড থেকে রাইট প্রোটেকশন দূর করবেন । পেনড্রাইভ (Pen drive) বা মেমরি কার্ডে আজ আমদের নিত্য প্রয়োজনীয় সঙ্গী । বর্তমানে ভাইরাসের আক্রমন বা রেজিস্ট্রি হ্যাকের মাধ্যমে স্টোরেজ ডিভাইসকে রাইট প্রটেক্টেড করা একটি কমন প্রবলেম হয়ে দাঁড়িয়েছে। তবে আসুন জেনে নিই কিভাবে কি ভাবে পেনড্রাইভ ও মেমরি কার্ড থেকে রাইট প্রোটেকশন দূর করবো ।
যে ভাবে করতে হবে-

কিভাবে স্টোরেজ ডিভাইস নিয়ন্ত্রন করবেন ? উপডেট ২০১৫

  • ১) উক্ত ডিভাইস থেকে কোন ফাইল বা ফোল্ডার কপি বা মুভ করা যায় না।
  • ২) ডিভাইসটি ফরম্যাট করা যায় না।
  • ৩) সম্পূর্ণ ডিভাইসটি রাইট প্রটেক্টেড হয়ে থাকে।

সমাধানঃ
অনেক সময় পেনড্রাইভ বা মেমরি কার্ডের সুইচ এর কারণেও এই সমস্যা হতে পারে। মেমরি কার্ডের সুইচ সাধারনত অ্যাডাপটরের গায়ে বসান থাকে। সুতরাং দেখে নিন সুইচ অফ করা আছে কিনা।


প্রথম পদ্ধতিঃ
> পেনড্রাইভটি পিসিতে কানেক্ট করুন এবং দেখে নিন পেনড্রাইভটি পিসির কোন ড্রাইভলেটার (যেমন, K, L ইত্যাদি) হিসেবে কাজ করছে।
> Start থেকে Run এ গিয়ে regedit লিখে এন্টার দিন।
> এবার নিচের লাইন অনুসারে যেতে থাকুন (কোন অপশনে ডাবল ক্লিক করলে সেই অপশনটি খুলে যাবে) ঃ

HKEY_LOCAL_MACHINE\ SYSTEM\ CurrentControlSet\ Control\ StorageDevicePolicies

আপনার কম্পিউটারে StorageDevicePolicies খুঁজে না পেলে এখান থেকে মাত্র ১১১ বাইটের একটি ফাইল ডাউনলোড করে নিয়ে ডাবল ক্লিক করলে অটোম্যাটিকভাবে অপশনটি চলে আসবে।

> এবার StorageDevicePolicies এর অধিনে থাকা ডানপাশের WriteProtect ডাবল ক্লিক করুন।



> এখানে Value data যত থাকুক ০ (শুন্য) করে দিয়ে Ok করে দিন।


> রেজিস্ট্রি এডিটর ক্লোজ করে পিসি রিস্টার্ট দিয়ে পুনরায় পেনড্রাইভ রিকানেক্ট করুন।

দ্বিতীয় পদ্ধতিঃ
> Start থেকে Run এ গিয়ে cmd লিখে এন্টার দিন।
> CHKDSK X: /F লিখে এন্টার দিন। লক্ষ্য করুন, এখানে X কে পেনড্রাইভের ড্রাইভ লেটার হিসেবে ইউজ করা হয়েছে।

কোন অসুবিধে হলে কমেন্ট করুন। ধন্যবাদ।

UC Browser আপনার কম্পিউটারের জন্য একদম ফ্রী

7 comments :
আশা করি আপনারা সবাই ভাল আছেন। আজ আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করবো জনপ্রিয় একটি ওয়েব ব্রাউজার। UC Browser (ইউসি ব্রাউজার)। ইউসি ব্রাউজার কিছুদিন আগে পর্জন্ত শুধুমাত্র এন্ড্রয়েড এর জন্য ও জাভার জন্য ছিল। কিন্তু বর্তমানে এই ইউসি ব্রাউজার কম্পিউটারের জন্যও পাওয়া যাচ্ছে।


General Version:

জেনারেল ভার্ষনটি সবাই ব্যবহার করতে পারবে। তাছারাও ইউসি ব্রাউজারের ইন্ডিয়ান ভার্ষন ও রয়েছে। ইন্ডিয়ান ভার্ষনটিও নীচে দেয়া হল। তাছারা নীচে জেনারেল ভার্ষনটির কিছু স্ক্রীন শত দেয়া হলঃ

স্ক্রীন শটঃ 




ডাউনলোড লিঙ্ক(জেনারেল ভার্ষন):




ডাউনলোড



Indian Version:

সাধরন ভাবে ইন্ডিয়ান ভার্ষন শুধুমাত্র ইন্ডিয়ার ইউজার দের জন্য। তাছারা যদি কেউ সাধারন ভাবে ইন্ডিয়ার বাইরে থেকেও ইন্ডিয়ান ভার্ষন চালাতে পারেন তাহলেও কোন অসুবিধা নেই। নীচে স্ক্রীন শট দেয়া হল।

স্ক্রীন শটঃ



ডাউনলোড লিঙ্ক ( ইন্ডিয়ান ভার্ষন):



ডাউনলোড


তাহলে বন্ধুরা আজ এই পর্জন্তই। আশা করি ভাল থকবেন। কোন সমস্যা হলে নীচে কমেন্ট করুন।
source:esobondhu.com
www.computerjajot.com

বিশ্ব পরিভ্রমণে ডানা মেলেছে সৌর বিমান - BBC Bangla

7 comments :
সৌরশক্তি-চালিত বিমানে চড়ে বিশ্ব পরিভ্রমণের এক অভিযান শুরু হয়েছে।
সোলার ইমপ্যাক্ট-২ নামে এই বিমানটি আবুধাবি থেকে ডানা মেলেছে ওমানের রাজধানী মাস্কাটের উদ্দেশ্যে।
বিশ্ব পরিভ্রমণে ডানা মেলেছে সৌর বিমান

আগামী পাঁচ মাস ধরে বিমানটি মহাদেশ থেকে মহাদেশে পাড়ি দেবে।
পথে বিভিন্ন দেশে সেটি থামবে, প্রয়োজনে মেরামত চালানো হবে এবং সৌরশক্তির সুফল সম্পর্কে প্রচারািভযান চালানো হবে।
এই অভিযানের নায়ক দুই সুইস নাগরিক -- অন্দ্রে বোর্সবার্গ এবং বার্নার্ড পিকার্ড।
বিমানটি এতই ছোট যে মাত্র একজন লোক এতে চড়তে পারে।
এই মুহূর্তে বিমনাটি চালাচ্ছেন অন্দ্রে বোর্সবার্গ। পরে মি. পকিার্ড এর নিয়ন্ত্রণভার হাতে তুলে নেবেন।
রওনা হওয়ার আগে মি. বোর্সবার্গ কথা বলেছিলেন বিবিসির সাথে। তিনি জানান, বিশ্ব পরিভ্রমণের সময় বিমনাটিকে প্রশান্ত এবং আটলান্টিক মহাসাগরও পাড়ি দিতে হবে।
আবুধাবি থেকে মাস্কাটের দুরত ৪০০ কি.মি। এই পথ পাড়ি দিতে বিমানটির সময় লাগবে ১২ ঘন্টা।
বিমনাটির যাত্রাপথের হদিশ ইন্টারনেটে সরাসরি সম্প্রচার করা হচ্ছে।
তথ্যসূত্র -www.bbc.co.uk/bengali

কিভাবে ব্লগে পছন্দ মতো জায়গায় এডসেন্স কোড যুক্ত করবেন ?

2 comments :
আজ শেয়ার করবো কিভাবে পোষ্টের মাঝে Google Adsense কিংবা অন্য অ্যাডসেন্স নেটওয়ার্কের অ্যাড যুক্ত করা যায় । এটা করতে গেলে যা করা প্রয়োজন তা হল data:post.body এই কোড'কে দুই ভাগে ভাগ করে ফেলতে হবে, এবং এডসেন্স কোড এই দুই ভাগের মাঝেই দিতে হবে। 
এটিও পড়ুন - ছাত্র ছত্রী দের অনলাইনে আয় করার সাত সতেরো
 যেভাবে Read More-এর জন্য জাম্প ট্যাগ দেওয়া হয়, ঠিক সেইরকমের প্রয়োজন, এবং এক্ষেত্রে যেমন 

কিভাবে ব্লগে পছন্দ মতো জায়গায় এডসেন্স কোড যুক্ত করবেন ?


আমরা লিখি -
<!-- more -->
এইভাবে তেমনি এডসেন্স দেওয়ার জন্য শুধু লিখে দেবো -
<!-- adsense -->
তাহলে এর জন্য প্রয়োজনীয় কোড কেমন হবে? সর্বপ্রথমেই ব্লগস্পট টেমপ্লেটে খুঁজে নিন -
<data:post.body/>
এবারে এই লাইন মুছে দিয়ে নিচের কোড দিতে হবে -
<div expr:id='"aim1" +
data:post.id'></div>

<div style="clear:both;
margin:10px 0">
    !-- এখানে আপনার এড ইউনিট কোড বসাবেন -->
</div> <div expr:id='"aim2" + data:post.id'>
    <data:post.body/>
</div> <script type="text/javascript"> var obj0=document.getElementById("aim1<data:post.id/>"); var obj1=document.getElementById("aim2<data:post.id/>"); var s=obj1.innerHTML; var r=s.search(/\x3C!-- adsense --\x3E/igm); if(r>0) {obj0.innerHTML=s.substr(0,r);obj1.innerHTML=s.substr(r+16);} </script>
আপনার ব্লগের পোস্ট কলাম যতোখানি চওড়া সেই অনুযায়ী একটি কিম্বা দুটি এড ইউনিট দিতে পারেন। এখানে দুটি ২৫০x২৫০ এড ইউনিট দেওয়া হয়েছে। এবারে পোস্ট লিখে যান, এবং যেখানে ইচ্ছা সেখানেই এডসেন্স দিয়ে দিন। পোস্ট লেখার সময়ে Edit HTML'এ যেতেও হবেনা, নিচের কোডটি লিখে দেবেন কেবল -
<!-- adsense -->
যদি এটা লিখতে ভুলেও যান, তবুও সমস্যা নেই কারন এডসেন্স দেখা যাবে পোস্টের শুরুতেই, প্রথম প্যারাগ্রাফ শুরুর আগের লাইনে দেখা যাবে। এবারে যে যেরকম সুন্দরভাবে এড ইউনিট বানাবেন, ততো সুন্দর ভাবে তা পোস্টের লেখার সাথে মিশে যাবে এবং এডসেন্স বলে মনেই হবেনা (Ads by Google লেখাটা ছাড়া)।
*** যেকোনো ধরনের টেমপ্লেট এডিটিং করার আগে আপনার টেমপ্লেটের ব্যাকআপ নিয়ে নেবেন। *** 
নোট-
এইভাবে এডসেন্স কোড বসানোর আগে কোড ব্লক'টি HTML Parser দিয়ে পার্সিং করে নেবেন।

ডাউনলোড করে নিন SEO এস ই ও শিখার জন্য দুটি বাংলা ইবুক । ডাউনলোড করতে ভুলবেন না ।

3 comments :
 আজকে আমি আপনাদের SEO এস ই ও শিখার জন্য দারুন দুটি বই দেবো আমি আশাকরি আপনাদের বই দুটি খুব কাজে আসবে । এবং আপনার এই বই থেকে SEO সম্পর্কে কিছুটা হয়ে ধারনা করতে পারবেন । তাহলে আর দেরি না করে নীচে থেকে ডাউনলোড করুন ।







                                  SEO বাংলা ইবুক ১                        SEO বাংলা ইবুক ২


কোন সমস্যা হলে কমেন্ট করুন।

Avatar ও Gravatar কি? কি কাজে ব্যবহার করা হয় ? বিস্তারিত পড়ুন ......

No comments :
অ্যাভ্যাটর (Avatar) কি?
সহজ কথায় অ্যাভ্যাটর হচ্ছে একটি ছবি, যা আমরা বিভিন্ন সাইটে বিশেষ করে ব্লগে নিজের পরিচিতির জন্য ব্যবহার করি।
গ্র্যাভ্যাটর (Gravatar) কি?
গ্র্যাভ্যাটর হচ্ছে এমন একটি ব্যবস্থা যা দিয়ে সব সাইটে একই অ্যাভ্যাটর ব্যবহার করা যায়। এর জন্ম ২০০৭ সালে। এটি সকল ওয়ার্ডপ্রেস.কম এবং ওয়ার্ডপ্রেস.অর্গ দ্বারা তৈরি করা সাইট (যেমন techtunes.com.bd) সাপোর্ট করে। এছাড়া আরো অনেক সাইট গ্র্যাভ্যাটর সাপোর্ট করে। এটি মূলত ইমেইলের উপর ভিত্তি করে কাজ করে।
ব্যবহারঃ
গ্র্যাভ্যাটর ব্যবহার করতে হলে নিচের ধাপ গুলো অনুসরন করুনঃ
প্রথমে আপনাকে গ্র্যাভ্যাটর সাইটে রেজিষ্ট্রেশন করতে হবে। গ্র্যাভ্যাটরের সাইটের ঠিকানা www.gravatar.com আপনার যদি ওয়ার্ডপ্রেস.কম এ কোন ব্লগ থাকে তাহলে আপনাকে রেজিষ্ট্রেশন করতে হবে না। আপনি গ্র্যাভ্যাটরের সাইটে গিয়ে সরাসরি আপনার ওয়ার্ডপ্রেস.কম ব্লগের ইউজার নেম পাসওয়ার্ড দিয়ে প্রবেশ করতে পারবেন। আর আপনি যদি নতুন হন তাহলে সাইটের উপরের Log in /Sign up থেকে Sign Up এ ক্লিক করুন। তাহলে যে পেজ আসবে সেখানে আপনার ইমেইল দিয়ে Signup বাটনে ক্লিক করুন।

তাহলে আপনাকে একটি লিঙ্ক সহ একটি ইমেইল পাঠানো হবে। তারপর মেইলটি চালু করে সেই লিঙ্কটি ক্লিক করে চালু করুন।

তারপর যে পেজটি আসবে সেখানে Username এবং Password দিয়ে Signup বাটনে ক্লিক করুন। আপনি যে ইউজার নেম দিবেন তা আগে কেউ ব্যবহার করলে গ্রহন যোগ্য হবে না।

তাহলে আপনার একাউন্ট তৈরি হয়ে যাবে। এবার ছবি যোগ করতে Add one by clicking here লেখাতে ক্লিক করুন।

তারপর আপনি কোথায় থেকে ছবি যোগ করবেন তা দেখিয়ে দিন। হার্ডডিস্ক থেকে ছবি যোগ করতে My computer’s hard drive বাটনে ক্লিক করে আপনার ছবি সিলেক্ট করে দিন।

ছবি আপলোড করার পর নিচের মত একটি পেজ আসবে সেখান থেকে rated G লেখাতে ক্লিক করুন।

আপনি চাইলে একাধিক ইমেইলও যোগ করতে পারবেন। এর জন্য গ্র্যাভ্যাটর সাইটে লগইন করে add a new email লেখাতে ক্লিক করে আরো ইমেইল ঠিকানা যোগ করতে পারেন। আপনি এখানে আপনার আরো তথ্য (যেমন নাম, ইমেইল, সোসাল নেটওয়ার্কিং সাইটে আপনার ঠিকানা, নিজের ওয়েব সাইটের ঠিকানা ইত্যাদি) দিতে পারেন। এর জন্য গ্র্যাভ্যাটর সাইটে লগইন করে পেজের উপরের দিকে My Account থেকে Edit My Profile এ ক্লিক করুন।
এখন আপনি কোন সাইটে মন্তব্য লিখার সময় ইমেইল বক্সে আপনার ইমেইল অ্যাড্রেস দিলে সে সাইটের সাথে গ্র্যাভ্যাটর সাইটের সংযোগ থাকলে সয়ংক্রিয় সেখানে আপনার অ্যাভ্যাটর চলে আসবে।
উৎস - https://iwwintricks.wordpress.com

ওয়েবডিজাইনার শেখার বাংলা ইবুক -CSS , HTML , JS

No comments :
আজকে আমি আপনাদের জন্য দারুন তিনটি কাজের ইবুক নিয়ে এসেছি আশাকরি আপনাদের কাজে আসবে এই ইবুক গুলো । ইবুক তিন টিতে সুন্দর ভাবে স্টেপ বাই স্টেপ দেওয়া আছে কিভাবে কি করতে হবে । আমি আসাদাবি এই ইবুক গুলোকে ঠিক ভাবে পড়লে আপনি হয়ে যেতে পারেন CSS , HTML , JS । আসুন যেনে নিই এই তিনটির সম্পূর্ণ নাম ।



CSS , HTML , JS  এর পুরো নাম-
  • ১// CSS → Cascading Style Sheets
  • ২// HTML → Hyper Text Markup Language
  • ৩// JS → JavaScrip


এবার চলুন ইবুক গুলো ডাউনলোড করে নিন । ডাউনলোড করার জন্য নীচের ডাউনলোড লিঙ্ক গুলো ব্যবহার করুন ।

ডাউনলোড ইবুক 


 আশাকরি ভালো করে বুঝে বুঝে পড়লে আপনার আর কোন ট্রেনিং এর দরকার নাই । আর হা এই ইবুক গুলো জিনি লিখেছেন আমি তার লিঙ্ক গুলো সরা সরি দিয়েছি , তাই আপনারা যদি এই ইবুক গুলো শেয়ার আপনার ব্লগে শেয়ার করতে চান তাহলে অবশ্যই এই লিঙ্ক গুলো ব্যবহার করবেন ।